Golpo

গরীবের প্লাস্টিক ঘর | Bangla Story | Bangla Moral Story | Bangla Golpo | Bengali Fairy Tales

গরীবের প্লাস্টিক ঘর | Bangla Story | Bangla Moral Story | Bangla Golpo | Bengali Fairy Tales

উত্তরাখণ্ডের একটা গ্রামে কামলেশ নিজের স্ত্রী এবং বাচ্চার সঙ্গে থাকত মজুরের কাজ করতো এবং নিজের সংসারের পালন করত তার একটা মেয়ে ছিল যে পড়াশোনা করে স্কুলের ফিস জমা করছিল কিন্তু পড়াশোনা একদম ছিল না সারাদিন মোবাইলে গেমস খেলতে নিজের বন্ধু বান্ধবীদের সাথে অনলাইন কথা বলত সারাদিন ও মোবাইলে লেগে থাকত এক মাস ধরে যেন উভয়কে হাতে লাগায় নি.

সারাদিন মোবাইল নিয়ে থাকো একটা সময় তো পড়াশোনা করো তোমার মা এবং আমি সারাদিন পরিশ্রম করে তোমাকে পড়াশোনা শেখাচ্ছি আর তুমি হলে আর তুমি সারাদিন এই মোবাইল নিয়ে পড়ে আছ রেজাল্ট যদি খারাপ হয় তাহলে তোমার আর তোমার এই মোবাইলের যে কি অবস্থা তোমাদের জন্য লেট হচ্ছে না নাকি প্রতি মাসে ভারত আয়নিক কবে নাগাদ দেবে তুমি ভাবছো এই মাসের শেষ পর্যন্ত মোট তিন মাসের ভাড়া আরো 15 হাজার টাকা দিয়ে দাও না হলে ঘর খালি করে দিও আমি কিন্তু বলে দিলাম আগে হুজুর আমি এত টাকা কোত্থেকে আনবো আমি আপনাকে তিন মাসের ভাড়া নিশ্চয়ই নিয়ে দেবো কিন্তু 15000 ডিপোজিট কোথা থেকে আনবো আমি এসব কিছু.

তোমার থেকে অনেক ভালো ভারতে আমি পেয়ে গেছি যে ভরা ডিপোজিট দুটোই বেশি দেবে নিরাশ হয়ে ভাবতে শুরু করে এখন কি করবো আমরা ডলি বাবা আমাদের কাছে তো আর কোন রাস্তাও নেই আর কোনো আত্মীয়-স্বজন নেই যাদের কাছে সহায়তা চাইবো আমি কিছু বুঝতে পারছিনা গো ভাগ্যবান শুধু চোখে অন্ধকার দেখছি তার মজুরী করার জন্য চলে যায় মজুরির জায়গায় পৌঁছয় তখনও দেখে অন্য সহকর্মীরা কাজ ছেড়ে জিনিসপত্র নিয়ে ওখান থেকে চলে যাচ্ছে খুব খারাপ দিন যাচ্ছে আরে কি হয়েছে ভাই এইসব মুনিরা কোথায় যাচ্ছে আরে কোথায় যাবে আর যে যার ঘরে ফিরে যাচ্ছে ঠিকাদার সবাইকে কাছ থেকে বার করে দিয়েছে.

তার কথা শুনে দৌড়ে ঠিকাদারের কাছে পৌঁছায় তো আমি কি করতে পারি আমি কি জেনে বুঝে কাজ বন্ধ করেছি যার জমি তার ভাল ব্যবসা না হওয়ার জন্য সবাইকে কাছ থেকে বের করে দিয়েছে এবার মশাই আপনার কাছে অন্য কোন কাজ আছে দয়া করে একটু বলবেন না হলে আমার পরিবার রাস্তায় বসে পড়বে আর এখানে তো কিছু নেই তোমাকে বাইরে গিয়ে কাজ খুজতে হবে আমাকে ক্ষমা করে দিও কামলেশ ঠিকাদারের কথা শুনে ওখান থেকে চলে যায় আর তাতেই একটা মন্দিরে বসে ভাবতে শুরু করে এবং কীভাবে সামলাবো আমি আপনার সাহায্য চাই আমাকে কোন একটা রাস্তা দেখান আমাকে মার দর্শন দেখান সেই সময়ই একটা লোক মন্দিরের দিকে অস্থির অবস্থায় দৌড়তে দৌড়তে.

আরে সে মন্দির এর পেছনে লুকিয়ে পড়ে ওই লোকটার পেছনে অন্য আরও কয়েকজন দৌড়চ্ছিল পড়লে চক্রবর্তীর অন্যদিকে তাকিয়ে দেখি ওই গাছটার আগে রেখেছি আমি ওকে কি চুরি করে পালিয়েছে লোক তোমার পিছনে আসছে আমি পরে চোর নই আমার একটা প্লাস্টিক বানানোর ফ্যাক্টরি আছে সরকার সেটাকে বন্ধ করে দিয়েছে সেই জন্য লোক আমাকে মারার জন্য পিছনে পড়ে গেছে ওদের বক্তব্য প্লাস্টিক তাকে ব্যবহার করে পরিবেশ দূষণ করছি এই পরিবেশ দূষণ করে যাও এই পরিবেশকে দূষিত করেছে অবশ্যই এইটুকু বলে কামলেশ ওখান থেকে চলে যায় কিন্তু তক্ষুনি কেলাস ওকে আওয়াজ দেয় আর বলে শোনাও তো আমাকে.

তোমার বাড়িতে আসতে পারো যখনই পরিবেশ শান্ত হয়ে যাবে পুনরায় আমার বাড়ি এবং আমার ব্যবসা শুরু করে দেবো আমার নিজেরই পরিবার রাখার জন্য ঘরের কোন ঠিকানা নেই তুমি উপর থেকে আমার ওপর চাপ সৃষ্টি করছে ওখান থেকে চলে যায় নিজের বাড়িতে গিয়ে সমস্ত কথা নিজের স্ত্রী এবং মেয়েকে বলে এখন আমরা কি করবো ডলের বোর্ড এক্সাম সামনেই আমাদের বাড়ির দারিদ্রতার কারণে আমাদের মেসের না হয়ে যায় দলীয় সময় নিজের মোবাইলে গেম খেলছিল আর সমস্ত কথা শোনার পর ডলি বলে বাবা আমরা প্লাস্টিকের বাড়ি বানিয়ে ওখানেই থাকি না কেন তাদের পরিবেশ ঠিক থাকে না আজকে আমার সঙ্গে একটা লোকের সাক্ষাৎ হয়েছিল যার পেছনে লোকজন লেগে গেছে ওর প্লাস্টিকের ফ্যাক্টরি ছিল.

বোতল নিয়ে আমরা নিজেদের বাড়ি বানিয়ে নেই আমিও শুনেছি প্লাস্টিক কক্ষপথে না আর তাতে আমাদের বাড়ির সমস্যাও দূর হয়ে যাবে আর ঐ লোকটার ব্যাকট্রিয় চালু হয়ে যাবে তোমাদের সঠিক জায়গায় রয়েছে তো যা খুশি বলে যাচ্ছ ক্লাস থেকে কিভাবে তৈরি হয় সারারাত প্লাস্টিকের ঘরের ব্যাপারে ভাবতে থাকে আর সকালে উঠতেও কিছু টিপস আর বিস্কিটের প্যাকেট নিয়ে মন্দিরের দিকে চলে যায় আমি তোমার জন্য কিছু ব্যাপার চার বিস্কুট নিয়ে এসেছি মন্দির পৌঁছানোর পর ও দেখল কৈলাস ওখানে মন্দিরের বাগানের বেঞ্চে শুয়েছিল.

কি হয়ে গেছে ভাই তুমি এখন আসছো যখন গোটা রাত মশা আমাকে শেষ করে দিয়েছে তখন কোথায় ছিলে আর এইসব কথা ছাড়ুন এখন আমার কাছে এমন একটা আইডিয়া রয়েছে আমাদের দুজনেরই কাজ হয়ে যাবে কি সেই আইডি আমাকে একটু বল সমস্ত কথা বলে আমার আপনার দোকানের প্লাস্টিকের বোতলের একটু দরকার হতে পারে তার ভেতরের মাটি ভোরে আমরা অনেকগুলো বাড়ি বানাতে পারি এর থেকে আপনার ব্যবসা অনেক ভালো হয়ে যাবে আর আমাদের মতো গরীবদের অনেক সাহায্য হবে এইডাই ডিয়া তোমার খুবই সুন্দর কিন্তু তোমার কি মনে হয় যে আমরা দুজনেই কাজটা করতে পারবো আমাদের তো অন্য লোকের সাহায্য লাগবে তুমি ওসব চিন্তা করো না ভাই আমার সাথে আরো অনেক মজুর রয়েছে যাদের কাজের দরকার আছে ওদের যদি আপনি দিনমজুরি দেন তোরা সব কাজ করে দেবে.

কামলেশ গিয়ে সমস্ত সাথী কর্মীদের এই কথাটা বলে দেয় আর সমস্ত কর্মীরা নিজেদের নিজেদের প্লাস্টিকের বাড়ি বানানোর জন্য তৈরি হয়ে যায় আজ থেকে আমরা অন্য আজ থেকে আমরা কোন নতুন রকম জিনিস করতে চলেছি ভ্রমন নিয়ে কাজ করতে হবে তাহলে আমরা সক্রিয় হতে পারব আরেক কিন্তু আমরা কিন্তু আমরা আমাদের বাড়িতে ঘরে তোমরা সবাই এসবে চিন্তা করো না আমার ফ্যাক্টরির পাশে অনেক বড় একটা বাজা জমি রয়েছে তোমরা সবাই যে যার বাড়ি ওখানে বানাতে পারো সমস্ত কর্মীরা প্লাস্টিকের বোতলের মধ্যে মাটি ভরে বোতলের ওপর বোতল রাখা শুরু করে দেয় আর তাদের বাড়ি বানানোর কাজ শুরু হয়ে যায় কিছু মাস কেটে যায় আর এখন কর্মীদের ঘর তৈরি হয়ে গেছিল কিন্তু ওই সময়ে হঠাৎ করে একটা বড় বন্যা চলে আসে খুব জোরে বৃষ্টি হচ্ছে.

প্লাস্টিকের বাড়ি ডুবে যাবে একটু সামলে থেকো জল ওদের ঘরে ঢুকতে পারে না কিছুক্ষণ পর বৃষ্টি থেমে যায় সমস্ত কর্মীরা তাদের পরিবার মিলে খুশি উদযাপন করেন আর তখনই হেসে বলে বাবা এই দেখো আমার ওরে যায় চলে এসেছে আর আমি ফার্স্ট হয়েছি জানো কামলেশ আর তার পরিবার এটা শুনে খুব খুশি হয় আর খুশি উদযাপন করে.

 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button